জীবনযাপন     সংবাদ

তারকা

চিরসাথি, পথ চলার

নাদিয়া নাহরিন | ১৫ মার্চ ২০১৭, ০১:৩০  

দাম্পত্য জীবনে চলার পথে সুসময়–দুঃসময় তো আসেই। তার ওপর দীর্ঘ সময় একসঙ্গে চলা। রুপালি পর্দার জগতে সংসার ভাঙাগড়ার খবরটা একটু বেশিই আসে। কারও যেমন দীর্ঘ সময়ের সংসার ভেঙে পড়ে, আবার যুগ যুগ ধরে দাম্পত্য জীবন টিকেও থাকে অনেকের। দীর্ঘ সময় একসঙ্গে পথ চলছেন, এমন কয়েক জোড়া দম্পতির কথা রইল এবার।

সৈয়দ হাসান ইমাম ও লায়লা হাসানসৈয়দ হাসান ইমাম ও লায়লা হাসান
সৈয়দ হাসান ইমাম ও লায়লা হাসানের দাম্পত্য জীবনের অর্ধশত বছর পার হয়ে গেছে। একসঙ্গে এমন মধুর ‘দাম্পত্য’ জীবন কাটানোর রহস্য কী, জানতে চাওয়া হয়েছিল লায়লা হাসানের কাছে। তিনি এক বাক্যে বললেন, ‘আমাদের মধ্যে বোঝাপড়াটা খুব ভালো। অনেকেই জানতে চান, এক ঘরে দুই সিংহের কী অবস্থা? আমরা হেসে ফেলি। কারণ আমাদের শুরু থেকেই একটা বোঝাপড়া ছিল এমন, আমরা একজন যদি উত্তেজিত হই, আরেকজন চুপ থাকব। পরে পরিস্থিত ঠান্ডা হলে একে অপরকে বুঝিয়ে বলি।’
লায়লা হাসান যোগ করে বলেন, ‘আমরা দিনের একটা সময় একসঙ্গে কাটাই। সেটা অবশ্যই কাজ শেষ করে আসার পর। কিন্তু সারা দিন আমরা একে অপরের খোঁজ-খবর রাখি।’
তবে সবকিছুর ঊর্ধ্বে রাখলেন একে অপরের প্রতি বিশ্বস্ততা। সঙ্গে হতে হবে সহনশীল ও ধৈর্যশীল। আর একে অপরের প্রতি ভালোবাসা থাকতে হবে ‘অটুট’। তাহলেই বন্ধনটা শক্তিশালী হবে। এমনটাই মনে করেন এই দম্পতি।

ভিক্টোরিয়া ও বেকহামভিক্টোরিয়া ও বেকহাম
খেলার মাঠের বেকহাম ও ফ্যাশন জগতের ভিক্টোরিয়ার পরিচয় ১৯৯৭-এর দিকে। কিন্তু ফুটবলের এই তারকাকে মোটেই চিনতে পারেননি ভিক্টোরিয়া। তিনি বলেন, ‘আমি ফুটবল পছন্দ করতাম না, তাই দেখতামও না। এ জন্যই আমি ডেভিডকে চিনতে পারিনি।’ পরবর্তী সময়ে র্যা ম্প জগতে দুজনের সম্পর্কের শুরু। বর্তমানে তিন ছেলে ও এক মেয়েকে নিয়ে এই দম্পতি তাঁদের ১৭ বছর পূর্ণ করলেন।

মেরিল স্ট্রিপ ও ডন গামারমেরিল স্ট্রিপ ও ডন গামার
তিন যুগেরও বেশি, দীর্ঘ ৩৮ বছর ধরে নিজেদের দাম্পত্যের সুর এখনো ধরে রেখেছেন মেরিল ও ডন। মেরিলের ভাষ্যমতে, ‘আমি যদি ডনকে না দেখতাম, তবে অনেক কিছুই অপূর্ণ রয়ে যেত।’ অপর দিকে দাম্পত্যের পুরো কৃতিত্বটাই ডন দিতে চান তাঁর স্ত্রীকে।
দ্য আয়রন লেডি সিনেমার কথা মনে আছে? যুক্তরাজ্যের প্রধানমন্ত্রী মার্গারেট থ্যাচারের চরিত্রে অভিনয় করে বেশ কটি আন্তর্জাতিক পুরস্কার নিজের ঝুলিতে পুরে নেন মেরিল স্ট্রিপ। ছবিটি দেখার পর অনেকেই মনে করেছিলেন যে মেরিল বুঝি নিজেও বাস্তব জীবনে ‘আয়রন লেডি’ হতে চললেন। কিন্তু মেরিলের পথ চলার সঙ্গী ডন বলেন, ‘মেরিল মোটেও বদলায়নি। যেমনটা দেখেছিলাম সম্পর্কের শুরুতে, ঠিক তেমনটাই আছে সে। সদা প্রাণবন্ত আর বন্ধুবৎসল। তাই তো এতগুলো বছর আমরা একসঙ্গে থাকতে পেরেছি।’

হিউ জ্যাকম্যান ও ডেবরা লি ফার্নেসহিউ জ্যাকম্যান ও ডেবরা লি ফার্নেস
‘কোরেলি’ নামক একটি টিভি শোতে দুজনের পরিচয়। অতঃপর দীর্ঘ ২০ বছরের সংসার। পর্দার উলভারিন একটু খিটমিট হলেও বাস্তবজীবনে কিন্তু তিনি মোটেও এমনটি নন। বরং বাস্তবের হিউ জ্যাকম্যান সম্পূর্ণই বিপরীত। এমনটাই মনে করেন তাঁর স্ত্রী ডেবরা লি ফার্নেস। তিনি বলেন, জ্যাক সংসারজীবনে খুবই ধীরস্থির ও শান্ত স্বভাবের। অপর দিকে স্ত্রী সম্পর্কে জ্যাকম্যানের অভিমত, ‘ডেবরাকে যখন আমি দেখেছিলাম, তখন সবচেয়ে ভালো লেগেছিল তাঁর দৃঢ় ব্যক্তিত্ব। আমি মোটেও তার পোশাক কিংবা চেহারা দেখে প্রেমে পড়ে যাইনি। তবে হ্যাঁ, ডেবরা সব সময়ই আমার চোখে সুন্দর ও প্রাণবন্ত।’

কাজল ও অজয়কাজল ও অজয়
চঞ্চল ও অশান্ত কাজল, অপর দিকে খুবই শান্ত ও নম্র স্বভাবের অজয়। বলিউডে অনেকেই মন্তব্য ছুড়েছিলেন যে এই সম্পর্ক টিকবার নয়। কিন্তু কথাটি একেবারেই ভুল প্রমাণ করলেন এই জুটি। ১৫ বছরের দাম্পত্যে সন্তান নাইসা ও ইয়ুগকে নিয়ে বেশ খুশিই আছেন তাঁরা।
তথ্যসূত্র: ব্রাইটসাইট ডট কম

 

পাঠকের মন্তব্য (০)

মন্তব্য করতে লগইন করুন