আন্তর্জাতিক     সংবাদ

আইএসে যোগ না দিলে অপহরণ!

অনলাইন ডেস্ক | ২৫ ডিসেম্বর ২০১৫, ১৯:০৮

 মিস ইরাক বিউটি কনটেস্টে অংশ নেওয়া প্রতিযোগীরা। যুদ্ধ-বিধ্বস্ত ইরাকের বাগদাদে ৪৩ বছরের মধ্যে প্রথমবারের মতো আয়োজন করা হয় এই প্রতিযোগিতার। ছবি: রয়টার্সসম্প্রতি ‘মিস ইরাক’ নির্বাচিত হওয়া শায়মা কাশিম আবদেল রহমানকে ‘অপহরণের’ হুমকি দিয়েছে জঙ্গি সংগঠন আইএস। ইন্ডিপেনডেন্টের এক খবরে এ কথা বলা হয়েছে। শায়মা আবদেল রহমানকে ফোনে বলা হয়েছে, আইসিসে যোগ না দিলে তাঁকে অপহরণ করা হবে।

১৯৭২ সালের পর এ বছরই প্রথম অনুষ্ঠিত হলো ‘মিস ইরাক’ সুন্দরী প্রতিযোগিতা। এতে কিরকুক প্রদেশ থেকে আসা ২০ বছর বয়সী শায়মা আবদেল রহমান সেরার মুকুট জিতেছেন। জঙ্গি গোষ্ঠী আইএস সেই সুন্দরী শায়মাকেই অপহরণের হুমকি দিল।
‘মিস ইরাক’ কনটেস্টে প্রথম রানার আপ হন ফারাহ নাসের। সুজান আমের হয়েছেন দ্বিতীয় রানার আপ।
খবরে আরও বলা হয়, ইরাকের সেরা সুন্দরীর তকমা মাথায় পরার পর শায়মা না কি ফোনে নানা হুমকি পেয়েছেন। সবচেয়ে ভয়ানক হুমকি পেয়েছেন আইএসের জঙ্গি পরিচয় দেওয়া এক ব্যক্তির কাছ থেকে। ফোনে হুমকির সুরে শায়মাকে বলা হয়েছে, ‘আইএসে যোগ দাও, নয়তো অপহরণ করা হবে’।
শায়মা অবশ্য এসব হুমকিতে খুব একটা ভয় পাচ্ছেন না। তিনি বলেন, ‘আমি প্রমাণ করতে চাই ইরাকি সমাজে নারীদের একটা নিজস্ব একটা অস্তিত্ব আছে। অন্য পুরুষের মতো আমারও অধিকার আছে। আমি কোনো অন্যায় কাজ করিনি; তাই ভয় পাওয়ার প্রশ্নই ওঠে না।’

আরও পড়ুন:
ইরাকে সুন্দরী প্রতিযোগিতা

পাঠকের মন্তব্য (০)

মন্তব্য করতে লগইন করুন