অর্থনীতি     সংবাদ

এসএমই অর্থায়নে সরকারি ব্যাংকের অবস্থা খুব খারাপ

নিজস্ব প্রতিবেদক | ২১ মার্চ ২০১৭, ০০:০৫  

ক্ষুদ্র ও মাঝারি উদ্যোক্তাদের (এসএমই) ঋণ দিতে সরকারি ব্যাংকগুলো খুব খারাপ অবস্থানে রয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠান বিভাগের সচিব ইউনুসুর রহমান। সরকারি ব্যাংকগুলোকে টিকে থাকার স্বার্থে এ খাতের অর্থায়নে বেশি গুরুত্ব দেওয়ার পরামর্শ দিয়েছেন তিনি। রাজধানীর বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলনকেন্দ্রে গতকাল সোমবার এসএমই খাতের অর্থায়নবিষয়ক এক সেমিনারে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন ইউনুসুর রহমান।
এসএমই ফাউন্ডেশন আয়োজিত পঞ্চম জাতীয় এসএমই মেলার সমাপনী দিনে আয়োজিত এ সেমিনারে বিশেষ অতিথি ছিলেন বাংলাদেশ ব্যাংকের ডেপুটি গভর্নর এস কে সুর চৌধুরী। এসএমই ফাউন্ডেশনের ব্যবস্থাপনা পরিচালক সফিকুল ইসলামের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন বাংলাদেশ ইনস্টিটিউট অব ব্যাংক ম্যানেজমেন্টের (বিআইবিএম) মহাপরিচালক তৌফিক আহমেদ চৌধুরী।
ইউনুসুর রহমান বলেন, এসএমই খাতে গত এক বছরে ১ লাখ ২৫ হাজার কোটি টাকার বেশি ঋণ দেওয়া হয়েছে। এর মাত্র ১০ শতাংশ সরকারি ব্যাংকের মাধ্যমে বিতরণ করা হয়েছে, বাকি ৯০ শতাংশই বিতরণ করেছে বেসরকারি ব্যাংক। এসএমই ঋণ বিতরণে সরকারি ব্যাংকগুলোর অবস্থান খুব খারাপ, ভবিষ্যতে টিকে থাকতে হলে তাদের এসএমই ঋণে যাওয়ার কোনো বিকল্প নেই।
ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠান বিভাগের সচিব আরও বলেন, ব্যাংকগুলো শুধু ঋণ দেবে আর ব্যবসা করবে এই দিন আর নেই। প্রতিটি ব্যাংকের এ জন্য উদ্যোক্তা উন্নয়ন নামের আলাদা বিভাগ থাকা দরকার। এ ক্ষেত্রে ব্যাংকগুলোকে গবেষণা বাড়াতে হবে, বিভিন্ন ক্ষেত্রে উদ্যোক্তাদের যোগাযোগ বাড়ানোর পদক্ষেপ নিতে হবে।
প্রবন্ধ উপস্থাপনায় বলা হয়, এসএমই খাতের উন্নয়নে উদ্যোক্তাদের যথেষ্ট পরিমাণে ঋণ পাওয়া যেমন গুরুত্বপূর্ণ, ঠিক ততটাই গুরুত্বপূর্ণ হলো সেটি কীভাবে ব্যবহার করা হবে। ঋণের সঠিক ব্যবহার নিশ্চিত করতে হলে যে উদ্যোক্তা ঋণ নিচ্ছেন তাঁর সক্ষমতা বৃদ্ধি করতে হবে। এ ক্ষেত্রে ঋণদাতা ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠানগুলো এগিয়ে এলে বিতরণ করা ঋণ ফেরত পাওয়া সহজ হবে। একই সঙ্গে তা অর্থায়নকারী প্রতিষ্ঠানগুলোর ব্যবসায়িক সুনাম বাড়াতেও ভূমিকা রাখবে।
ডেপুটি গভর্নর এস কে সুর চৌধুরী বলেন, এসএমই উদ্যোক্তাদের সক্ষমতা বৃদ্ধিতে সরকার, কেন্দ্রীয় ব্যাংক, বেসরকারি খাতসহ সবাইকে সমন্বিতভাবে কাজ করতে হবে। এসএমই ঋণের জামানত-প্রক্রিয়া আরও সহজ করার জন্য বাংলাদেশ ব্যাংক কাজ করছে। নারী উদ্যোক্তাদের জন্য ব্যাংক ঋণের সুদের হার আরও কমিয়ে আনার চিন্তাভাবনাও চলছে।
আর্থিক প্রতিষ্ঠান আইডিএলসির ব্যবস্থাপনা পরিচালক আরিফ খান বলেন, আইডিএলসির অর্থায়নে পরিচালিত এসএমই উদ্যোক্তাদের উৎপাদিত পণ্য অনলাইনে বিক্রির জন্য একটি ই-কমার্স ওয়েবসাইট খোলার উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। উদ্যোক্তাদের জন্য এক জায়গা থেকে সব ধরনের তথ্যপ্রাপ্তির উৎস তৈরির পরামর্শও দেন তিনি।
ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে অর্থনীতি বিভাগের অধ্যাপক মমতাজ উদ্দিন আহমেদের সঞ্চালনায় সেমিনারে বক্তব্য দেন বাংলাদেশ ব্যাংকের নির্বাহী পরিচালক আবদুর রহিম, উদ্যোক্তা রাশেদুল করিম, এসএমই ফাউন্ডেশনের পরিচালক মির্জা নুরুল গণি, উপমহাব্যবস্থাপক নাজিম হাসান সাত্তার প্রমুখ।

পাঠকের মন্তব্য (০)

মন্তব্য করতে লগইন করুন